শিরোনাম :
মারা গেছেন প্রখ্যাত গজলশিল্পী পঙ্কজ উদাস ৩০ হাজার টাকায় রোহিঙ্গা হয়ে যাচ্ছে বাংলাদেশি অনিয়ম দূর্নীতির আখড়া কক্সবাজার পল্লী বিদ্যূৎ অফিস ক্যাম্প ছেড়ে মিয়ানমারে গিয়ে ফিরে আসা অস্ত্রসহ আটক ২২ রোহিঙ্গা ৩ দিনের রিমান্ডে বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের নতুন অধিনায়ক শান্ত দূনীর্তির দ্বায়ে শাস্তি মূলক বদলী হওয়া রামু জনস্বাস্থ্য অফিসের কর্মচারী ইফতেখার আবারো বছর না পেরুতেই রামুতে বদলী শিক্ষা প্রতিষ্টানে গাইড বই কিনতে বাধ্য করা হচ্ছে শিক্ষার্থীদের রামু কলেজে ফান্ড লুটপাট, তদন্তে দুদক অংকুর দাশ স্মৃতি সংসদের উদ্যােগে শীতার্তদের মাঝে কম্বল বিতরন মহিলা ক্রীড়া সংস্থার আয়োজনে শেখ রাসেল ব্যাডমিন্টন টুর্নামেন্ট সম্পন্ন

টাকা নিয়ে স্থানীয়দের সহায়তায় চট্টগ্রাম থেকে আইডি কার্ড করেছে রোহিঙ্গা জামাল

রির্পোটার:
  • সংবাদ প্রকাশের সময় : মঙ্গলবার, সেপ্টেম্বর ১৭, ২০১৯
  • 1542 বার সংবাদটি পড়া হয়েছে

মাহাবুবুর রহমান.
জামাল হোসেন পিতা ফিরোজ আহাম্মদ মাতা দিলদার বেগম তার জন্ম রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ১৬ বছর বয়সে এক পরিচিত আত্বীয়ের মাধ্যমে ভূয়া নাম ঠিকানা ব্যবহার করে সৌদি আরব পাড়ি দেয়। সেখান থেকে এসে আবার নাম ঠিকানা পরিবর্তন করে বর্তমানে থাকে শহরের সদর উপজেলা পরিষদ সংলগ্ন দক্ষিন ডিককুল এলাকায়। দীর্ঘ বছর সেখানে থাকলেও বর্তমানে জাতিয় পরিচয় পত্র করেছেন চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন এলাকার পাঁচলাইশ ঠিকানা দিয়ে যার নাম্বার ১৯৮৮১৫৯৫৭০৮০০০২১৭। আত্ব স্বীকৃত এই রোহিঙ্গার দাবী স্থানীয় একজনের মাধ্যমে চট্টগ্রাম থেকে টাকা খরচ করে ভোটার হয়েছি। সেটা দিয়ে বর্তমানে ছেলে মেয়েদের লেখপড়া সহ কিছু করছে। তার ছেলে মেয়েরা বর্তমানে শহরের হাজী পাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে পড়ে। একই সাথে তার ভায়রা জাফরও একজন স্বীকৃত রোহিঙ্গা এলাকাবাসীর কাছে জানা গেছে জামাল এবং জাফর দুজনেই এখন স্থানীয়দের প্রভাবশালীদের ছত্রছায়ার বেশ দাপটের সাথে ডিককুল এলাকায় বসাবাস করছেএবং ব্যবসা বানিজ্য করছে।
এ ব্যপারে জামাল হোসেনের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেণ,আমি রোহিঙ্গা ক্যাম্প জন্ম গ্রহন করলেও দীর্ঘ বছর ধরে কক্সবাজারে থাকি এখন সবাই আমাকে চিনে। এখন এসব নিয়ে টানাটানি করে লাভকি ? তবে এলাকাবাসীর দাবী রোহিঙ্গাদের কাছে জাতিয় পরিচয় পত্র থাকলে তারা বাংলাদেশের সকল সুযোগ সুবিধা ভোগ করবে এটা কোন ভাবেই কাম্য নয়। আর এসব রোহিঙ্গারা কার মাধ্যমে কিভাবে ভোটার আইডি কার্ড করেছে সেটা খতিয়ে দেখে তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়ার দাবীজানান

নিউজটি শেয়ার করুন

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

এই বিষয়ে আরো সংবাদ দেখুন
© All rights reserved © 2021 cox71.com
Developed by WebArt IT