শিরোনাম :
উখিয়ার রোহিঙ্গা ছৈয়দ নুরের এনআইডি বাতিল করতে নির্বাচন কমিশনে অভিযোগ আদালতের নির্দেশ অমান্য করে কলাতলীতে হোটেল দখলে নিতে তৎপর প্রতারক চক্র অবাধ তথ্য প্রবাহ দূর্নীতি প্রতিরোধে সহায়ক ভুমিকা রাখতে পারে : সুজনের আলোচনা সভায় বক্তারা ফাঁদে ফেলে ব্ল্যাকমেইল করতেন বিশ্ববিদ্যালয়ের দুই নারী শিক্ষক ২০ হাজার ইয়াবা সহ আটক ১ জেলার বিভিন্ন মসজিদ মাদ্রাসায় কর্মরত রোহিঙ্গাদের সরকারি সুযোগ সুবিধা বাতিলের দাবীতে আবেদন রোহিঙ্গা সন্ত্রাসীর হাতে অপহৃত ৩ বাংলাদেশীকে উদ্ধার করেছে র‌্যাব নাফ নদীতে অজ্ঞাত শিশুর লাশ উদ্ধার ১০ হাজার ইয়াবা সহ আটক ২ আইনজীবি হলেন স্বামী স্ত্রী জসিম উদ্দিন ও মর্জিনা আক্তার

সিএনজি,মটরসাইকেল ছিনতাইকারীর মাস্টারমাইন্ড শহরের ইয়াকুব

রির্পোটার:
  • সংবাদ প্রকাশের সময় : শুক্রবার, এপ্রিল ২, ২০২১
  • 840 বার সংবাদটি পড়া হয়েছে

মাহাবুবুর রহমান.
সিএনজি,মটরসাইকেল ছিনতাই,গাড়ী থেকে ডাকাতি বিভিন্ন বাসা বাড়িতে চুরির মাস্টার মাউন্ড শহরের ৭ নং ওয়ার্ড এলাকার টেকনাফ পাহাড় এলাকার ইয়াকুব নামের এক যুবক। ইতি মধ্যে বিভিন্ন ভয়ংকার অপরাধের কারনে কয়েক দফা জেল খেটে আসলেও বদলায় নি অপরাধ প্রবণতা। সর্ব শেষ ২ দিন আগে পিএমখালী ঘাটকুলিয়াপাড়া এলাকার ইমাম হোসেনের সিএনজি ছিনিয়ে নিয়ে গেছে এই অপরাধ জগতের গুরু। ইতি মধ্যে সেই সিএনজি ছিনতাইকাজের অন্যতম এক সহযোগি আটক হলেও উদ্ধার হয়নি সিএনজিটি। আর প্রশাসন সহ সর্বস্থরের মানুষের কাছে ধারদেনা নিয়ে কেনা সিএনজিটি ফেরত পাওয়ার আশায় ঘুরছে অসহায় সিএনজিমালিক। তথ্য সূত্রে জানা গেছে,গত দুই দিন আগে ভাড়া যাওয়ার কথা বলে পিএমখালী ইউনিয়নের ঘাটকুলিয়াপাড়ার বাসিন্দা হতদরিদ্র সিএনজি চালক ইমাম হোসেনকে একটি সংঘবদ্ধ চক্র নিয়ে যায় খুরুশকুল ইউনিয়নের তেতৈয়া এলাকায়। পরে সেখানে গিয়ে সিএনজিটি কেড়ে নিয়ে চালককে মারধর করে প্রাণের মেরে ফেলার কথা বলে তাড়িয়ে দেয় অহরণকারীরা। পরে ইমাম হোসেন এলাকা থেকে কয়েকজন লোক নিয়ে গিয়ে ঘটনাস্থলে গেলে তেতৈয়া এলাকার স্থানীয় আওয়ামীলীগ নেতা শেখ কামাল তাদের সহায়তায় এগিয়ে আসে পরে ঘটনার বিবরণশুনে তিনি তাৎক্ষনিক অভিযান চালিয়ে বাবুল চুরা নামের একজনকে স্থানীয়দের সহায়তায় ধরে ফেলে বাবুল চুরা তাৎক্ষনিক ঘটনা স্বীকার করে টাকার জন্য সিএনজি ছিনতাই করা হয়েছে জানালেও পরে আর সেই সিএনজি কোথায় তার সন্ধান দেয়নি। পরে শুক্রবার রাতে তাকে সদর থানা হেফাজতে আনা হলে প্রথমে থানা পুলিশের কাছে বেরিয়ে আসে আরো তথ্য সেই সিএনজি ছিনতাইকাজের মাস্টার মাইন্ড হচ্ছে শহরের টেকনাফ পাহাড় এলাকা ইয়াকুব নামের এক যুবক। এদিকে এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে ইয়াকুব একজন পেশাদার অপরাধী প্রতিনিয়ত মটরসাইকেল চুরি ছিনতাই,সিএনজি ছিনতাই,পর্যটকদের কাছ থেকে ছিনতাই ডাকাতি সহ অপরাধের মাস্টারমাইন্ড ইয়াকুব। ইতি মধ্যে কয়েকবার জেলও খেটেছে তবে পরিবর্তন না হলে উল্টো বাড়িয়ে দিয়েছে অপরাধী কার্যক্রম। এদিকে সদর থানা পুলিশ সূত্রে জানা গেছে সিএনজি ছিনতাই সংক্রান্ত বিষয়ে মামলা হয়েছে সেই মামলায় একজনকে আটকও দেখানো হয়েছে তবে এখনো সিএনজি উদ্ধার করতে না পারায় চোখের পানি থামাতে পারছেনা অসহায় ইমাম হোসেন। কারন সিএনজি কিনতেই বিপুল ধারদেনা করেছেন তিনি। তাই সিএনজিটি উদ্ধারে সবার সহযোগিতা কামনা করেছেন তিনি।

নিউজটি শেয়ার করুন

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

এই বিষয়ে আরো সংবাদ দেখুন
© All rights reserved © 2021 cox71.com
Developed by WebArt IT