ভাসানচরে না যেতে ক্যাম্পে মিথ্যা প্রচারণা

রির্পোটার:
  • সংবাদ প্রকাশের সময় : শনিবার, নভেম্বর ১৪, ২০২০
  • 228 বার সংবাদটি পড়া হয়েছে

এইচএম এরশাদ \ বিশ্বের আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংস্থাগুলোর প্রতিনিধিদের কাছে রোহিঙ্গা অধ্যুষিত এলাকায় সফরে আসার অনুরোধ জানিয়েছেন স্থানীয় অধিবাসিরা। ভাসানচরের অবকাঠামো পরিদর্শন নয়, আগে ১২লাখ রোহিঙ্গার গাদাগাদি বসবাস ও স্থানীয়দের ক্ষয়-ক্ষতি পরিদর্শনে আসার অনুরোধ জানানো হয়েছে ওই প্রতিনিধিদের।
সূত্র জানায়, বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়া রোহিঙ্গাদের জন্য নির্মিত ভাসানচরের অবকাঠামো পরিদর্শন করার জন্য বাংলাদেশ সরকারের কাছে অনুমতি চেয়ে বিশ্বের আন্তর্জাতিক পাঁচটি মানবাধিকার সংস্থা চিঠি পাঠিয়েছে বলে জানা গেছে। স্থানীয় সর্দার মাতব্বরগণ বলেন, গাছপালা, পাহাড়-টিলা কেটে সাবাড় ও পরিবেশ-প্রতিবেশ ধ্বংস করে লাখ লাখ রোহিঙ্গা যে পরিমাণ লোকাল বসতিদের ক্ষতিসাধন করেছে, তা সরেজমিনে প্রত্যক্ষ করা প্রয়োজন বলে মনে করেন স্থানীয়রা। সরকার রোহিঙ্গাদের গাদাগাদি বসবাস ও ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থা থেকে রক্ষা করতে প্রায় তিন হাজার কোটি টাকা ব্যয়ে ভাসানচরে অবকাঠামো নির্মাণ করেছেন। রোহিঙ্গা ও স্থানীয় সবার জন্য বসবাস উপযোগি করে তুলেছে ভাসানচরকে। ইতোপূর্বে একাধিক সংস্থা এবং রোহিঙ্গা নেতারা সরেজমিনে ভাসানচর পরিদর্শন করে সন্তুষ্টি প্রকাশ করেছেন। কিন্তু ভাসানচরে রোহিঙ্গাদের স্থানান্তর করা হলে কতিপয় এনজিও এবং রোহিঙ্গা নেতাদের (আরএসও) নানাভাবে সমস্যায় পড়তে হচ্ছে বলেই তারা ভাসানচরে রোহিঙ্গা স্থানান্তরে বিরোধীতা করে আসছে। ইতোপূর্বে কতিপয় মানবাধিকার সংস্থার প্রতিনিধিদের মাধ্যমে রোহিঙ্গাদের ভাসানচরে না পাঠাতে বিবৃতিও প্রদান করিয়েছেন ওই স্বার্থান্বেষী মহল।

নিউজটি শেয়ার করুন

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

এই বিষয়ে আরো সংবাদ দেখুন
© All rights reserved © 2021 cox71.com
Developed by WebArt IT