চকরিয়ায় জাল দলিল সৃজনকারীর ১৪ প্রতারকের:বিরুদ্ধে আদালতের সমনজারি

রির্পোটার:
  • সংবাদ প্রকাশের সময় : মঙ্গলবার, মার্চ ৯, ২০২১
  • 376 বার সংবাদটি পড়া হয়েছে

কক্স৭১
কক্সবাজারের চকরিয়ায় জাল দলিল সৃজন করে ও ভূঁয়াপুঁজি দেখিয়ে ১৪ জনের একটি সিন্ডিকেট ২ কোটি ২০ লাখ টাকার মিথ্যা চেক প্রতারণা মামলা চকরিয়া সিনিয়র জুড়িসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে আসাদুল কবির রানা একটি মামলা দায়ের করেছে । উক্ত মামলায় আদালত আগামী ১৮ মার্চ ওই প্রতারক চক্রকে আদালতে হাজির হওয়ার নির্দেশ প্রদান করেছে।
আসাদুল কবির রানা জানায়, চকরিয়ায় জাল- দলিল সৃজন করিয়া ভূঁয়া পূঁজি দেখিয়ে দুই কোটি বিশলক্ষ টাকার মিথ্যা চেকের মামলা করায়(চলতি একাউন্ট নং ২৮৫০,চেক নং আই.বি.ই: ৭১৯০৭৫ ইসলামী ব্যাংক চকরিয়া শাখা)এবং আদলতে দালিলিক বিষয় হিসেবে উপস্থাপন করায় বাদী আসাদুল কবির রানা,পিতা : আবুল আশরাফ দায়ের করা সি. আর: ৫১৭/১৯ ইং মামলায় জালিয়ত চক্রের ৪ জন মূল হোতা সহ ১৪ জনের বিরুদ্ধে চকরিয়া বিজ্ঞ সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালত আসামিদের বিরুদ্ধে ৩৪/১৯৬/৪৭১ধারায় জাল-দলিল সৃজন করিয়া মিথ্যা চেকের মামলা দায়ের প্রমানিত হওযায় গত ৩১.১২.২০ইং আদালত কতৃক সমন জারী হয়। আগামী ১৮ মার্চ আদালতে তাদেরকে স্ব শরীরে হাজির হওয়ার নির্দেশ দেয়া হয়।
আসামিরা হলেন, চকরিয়া পৌরসভার বাটাখালী ৩নং ওয়ার্ডের মৃত মৌলভী ইয়াকুবের পুত্র মামুনূর রশিদ নূর ও হাবিবুন নবী, পৌরসভার ৮নং ওয়ার্ড চেয়ারম্যান পাড়ার খলিলুর রহমানের পুত্র মো: রিয়াদ উদ্দিন, মৃত মুস্তাফিজুর রহমান মুন্সির পুত্র সেলিম উদ্দিন লিটন, উপজেলার সুরাজপুর-মানিকপুর ইউনিয়নের জমিদার পাড়া এলাকার মৃত হোছাইন আহমদের পুত্র ফরিদুল আলম,পূর্ব সুরাজপুর এলাকার মৃত দেলোয়ার হোসেনের পুত্র রফিকুল ইসলাম, মানিকপুর ২ নং ওয়ার্ড চাঁদপাড়া এলাকার মনোয়ার হোসাইনের পুত্র হোছন সরওয়ার, ইউনিয়নের মগপাড়া বিল ৭ নং ওয়ার্ডের কামাল উদ্দিনের পুত্র মো: সাদ্দাম হোছাইন, পূর্ব বড়ভেওলা সিকদারপাড়া ২নং ওয়ার্ডের রফিক আহমদের পুত্র জসিম উদ্দন, ফাঁসিয়াখালী ইউনিয়নের দক্ষিণ ঘুনিয়া ৫নং ওয়ার্ডের এলাকার আমির হোছনের পুত্র জমির উদ্দিন। স্বাক্ষী ও লেখক হিসেবে আসামীরা হলেন, কামাল হোছাইন পিতা: মৃত মকবুল আহমদ, মো: হাবিবুর রহমান, পিতা: মৃত ইদ্রিস আহমদ,এম এ তাহের পিতা: মো: ইয়াকুব সর্ব সাং:-পশ্চিম বাটাখালী ৩নং ওয়ার্ড চকরিয়া পৌরসভা, এহছানুল হক পিতা: আব্দুর রাহমান সাং: শান্তিনগর, হারবাং, চকরিয়া,কক্সবাজার।
বাদীর আইনজীবি মিজবাহ উদ্দিন ও ওমর আলী, সি.আই.ডি রিপোট উল্লেখ করে বলেন, উক্ত মামলার আসামী গন দীর্ঘদিন যাবত জাল-দলিল তৈরি সহ সু-কৌশলে চেক চুরি করাকে পেশা হিসেবে গ্রহন করেছে। তাহারা কোন প্রকারের ব্যবসা করেনা। তাহারা সংঘব্দ্ধ প্রতারক চক্র। আরো জানা যায় ,সিআর: ৫১৭/১৯ইং মামলার বাদী ও সি,আর:৩১২/১৯, এসটি:১৪৭১/১৯ইং মামলার বিবাদী আসাদুল কবির রানা সিআর: ৩১২/১৯, এসটি:১৪৭১/১৯ ইং মামলার বাদীও, “সিআর: ৫১৭/১৯ইং বিবাদী মামুনুর রশিদ নুর হইতে দোকান ভাড়ার এডভান্স দেওয়া বাবদ ১লাখ ২০ হাজার টাকা পাবে। তাই সি.আই.ডি রিপোর্টে সিআর :৩১২/১৯, এসটি:১৪৭১/১৯ মামলার বাদী মামুনূর রশিদ নূরকে উক্ত মামলার বিবাদী ও সিআর :৫১৭/১৯মামলার বাদী দ্বারা চেক প্রদানের বিষয়টি অবিস্বাশ্য বলিয়া উল্লেখ করিয়াছে। তারা আরো জানান, তাদের বিরুদ্ধে উপজেলা বিজ্ঞ হাকিম আদালতে জাল-দলিল সৃষ্টির সিআর:৩০৪/২১,সিআর:২৫৩/১২ মামলা সহ আরও মামলা রহিয়াছে।
আসাদুর কবির রানা জানান,উক্ত প্রতারক চক্রের বিরুদ্ধে আদালতের সমন জারি করার পর থেকে মামলা প্রত্যহার করে নেয়ার জন্য প্রতিনিয়ত হুমকি দিয়ে আসছে। বর্তমানে তিনি ও তার পরিবারের লোকজন চরম নিরাপত্তাহীনতায় রয়েছে। এ ব্যাপারে তিনি সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের প্রয়োজনীয় হস্তক্ষেপ কামনা করছেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

এই বিষয়ে আরো সংবাদ দেখুন
© All rights reserved © 2021 cox71.com
Developed by WebArt IT